দুপুর ১২:০৭ | মঙ্গলবার | ২১শে আগস্ট, ২০১৮ ইং | ৬ই ভাদ্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ

পদ্মায় লঞ্চঘাট ধস: আল আমিনকে পেতে পরিবারের আকুতি

নিজস্ব প্রতিবেদক | বার্তাকন্ঠ ডটকম

আল আমিনকে পেতে পরিবারের আকুতি
শরীয়তপুর: জেলার নড়িয়া উপজেলার সাধুর বাজার লঞ্চঘাট ধসে নিখোঁজ ১০ জনের সন্ধান এখনও পাওয়া যায়নি।

গত মঙ্গলবার (৭ আগষ্ট) দুপুরে সাধুর বাজার লঞ্চঘাট ধসে পদ্মা নদীতে পড়লে ১০ জন নিখোঁজ হন বলে উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ নিশ্চিত করেছে।

দুর্ঘটনার পর তাৎক্ষণিকভাবে নয়জন নিখোঁজের কথা বলেছিল স্থানীয়রা; কিন্তু উপজেলা প্রশাসন ও ফায়ার সার্ভিস পাঁচজন নিখোঁজের কথা স্বীকার করেছিল।

নিখোঁজরা হলেন- পাচুখারকান্দির মোশারফ চোকদার, বাড়ৈপাড়ার জামাল ছৈয়াল, কেদারপুরের মজিবর (মজু) ছৈয়াল, শাহজাহান বেপারী, মোক্তারচরের রশিদ হাওলাদার, চাকধ গ্রামের নাছির হাওলাদার, নাছির করাতি, পিরোজপুরের একটি মোবাইল ফোন কোম্পানির এরিয়া সেলস এক্সিকিউটিভ শেখ আলামিন হাসান, অন্ত মকদম ও উত্তর কেদারপুর গ্রামের গুপি দাস।

একইসঙ্গে সাতটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, দুইটি ট্রলি, একটি মাহেন্দ্র জিপ ও একটি পন্টুন পানিতে তলিয়ে গেছে।

ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক নিয়াজ আহমেদ বলেন, লঞ্চঘাট এলাকা নদীতে বিলীন হওয়ার খবর পেয়ে আমরা উদ্ধার অভিযানে ডুবুরিদল নদীতে নামানোর পর প্রবল স্রোতের কারণে উদ্ধারর কাজে ব্যর্থ হয়ে ফিরে আসি। নৌকা-ট্রলার যোগে সন্ধান কাজ চলছে। আমাদের কাছে তালিকা অনুযায়ী এখনও ১০জন নিখোঁজ রয়েছে।

নিখোঁজদের সন্ধানে স্বজনরা পদ্মাপাড়ে অপেক্ষা করছে।

কেদারপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ঈমাম হোসেন দেওয়ান জানান, মঙ্গলবার বিকাল থেকেই নিখোঁজদের স্বজনসহ হাজার হাজার উৎসুক জনতা সাধুরবাজার এলাকায় ভিড় করছে। স্বজন হারানোর আশংকায় তারা আহাজারি করছে।

নিখোঁজ শাহজাহান বেপারীর মেয়ে শাহনাজ বেগম বলেন, আমার বাবা একজন রিকশা চালক। সে দোকানপাট সরানোর কাজে সহায়তা করতে এসে নিখোঁজ হয়ে যায়। তার কোনো সন্ধান পাইনি। আমার একটি বোন ও একটি ভাই প্রতিবন্ধী। আমরা কীকরে ওদের নিয়ে বাঁচব।

পিরোজপুরের রুহুল আমি বলেন, আমার ভাই শেখ আল আমিন হাসান আইটিএল মোবাইল কোম্পানির সেলস এক্সিকিউটিভ। সে এ এলাকায় মার্কেট ভিজিটে এসে ভাংগন দেখতে যায়। এ সময় হঠাৎ মাটি দেবে গেলে পানির স্রোতে হারিয়ে যায়। তার কোনো সন্ধান পাইনি।

নড়িয়া থানার ওসি আসলাম উদ্দিন বলেন, নিখোঁজের তালিকা দীর্ঘ হয়েছে। স্বজনদের দাবি অনুযায়ী এখন ১০ জন নিখোঁজ রয়েছে। প্রবল স্রোতের কারণে উদ্ধার কাজ করতে পারছে না ডুবুরিরা। নৌকা-ট্রলার যোগে সন্ধান কাজ চলছে। আইনশৃংখলার কাজে ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

এদিকে, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীম প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে নিখোঁজদের প্রতি পরিবারকে ১০ হাজার টাকা করে অনুদান দিয়েছেন।

অন্যদিকে নিখোঁজ পিরোজপুরের শেখ আল আমিন হাসানকে পেতে তার পরিবারের সদস্যরা বিভ্ন্নি উপায়ে আবেদন জানিয়েছেন। কেউ যদি তার সন্ধান পেয়ে থাকে তবে নিচের এই মোবাইল নম্বরে যোগাযোগ করতে বিশেষভাবে অনুরোধ জানিয়েছেন নিখোঁজের এই পরিবারের সদস্যরা।

ফোন- ০১৮৬৯২৩০৯৪৬, ০১৯১৮৮৪৯৩২৩, ০১৭১১৯৯২০১৬, ০১৬৭৩৫৬১৯৭৪, ০১৭১৪২০৮৪১৩, ০১৭২১০৪৬৯৫৩, ০১৯৩৭১৯৯৮৯৪, ০১৯২৮৯৮৪৮৭৩, ০১৭১১০৩২৯৯২, ০১৭১৪৩৭৮৯১৭

 

 

https://youtu.be/GL3LtGpTEfk

Comments

comments

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সর্বশেষ আপডেট



» স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা ” তারিক সাঈদ ” এর জন্মদিন

» গাছ লাগান, পরিবেশ বাঁচান’ : আশিক খান

» পদ্মায় লঞ্চঘাট ধস: আল আমিনকে পেতে পরিবারের আকুতি

» Teams

» TC team

» আলফাডাঙ্গায় জুয়া খেলার প্রতিবাদ করায় ইউপি সদস্যকে হত্যার হুমকি

» রুর‌্যাল জার্নালিষ্ট ফাউন্ডেশন (আরজেএফ)’র আলফাডাঙ্গা শাখার দ্বিবার্ষিক কমিটি গঠন

» সমাহার সফট চালু করলো করপোরেট বাল্ক এসএমএস

» আরজেএফ কেন্দ্রীয় কমিটিতে আলফাডাঙ্গার কামরুল ইসলাম নির্বাচিত

» “মধুমতি পাড়ের লেখিয়ে গ্রুপ”

» Test

» জেনে নিন টনসিলের ব্যথা দূর করার সহজ সমাধান !!

» ডায়াবেটিস রোগীদের পায়ে ব্যথা কমানোর ঘরোয়া উপায় !!

» ৪ অবস্থায় আদা ভুলেও খাবেন না !!

» বিয়ের পর মোটা হওয়া কিভাবে আটকাবেন?

Archive Calendar

আগষ্ট ২০১৮
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
« জুলাই    
 
১০
১১১২১৩১৪১৫১৬১৭
১৮১৯২০২১২২২৩২৪
২৫২৬২৭২৮২৯৩০৩১

সদস্য মণ্ডলী : –

উপদেষ্টা : ডা রফিকুল ইসলাম বিজলী
আইন উপদেষ্টা : এ্যড জামাল হোসেন মুন্না
সম্পাদক ও প্রকাশক : মাহির শাহরিয়ার শিশির
বার্তা সম্পাদক: সৈকত মাহমুদ
নির্বাহী সম্পাদক : মনেম শাহরিয়ার শাওন

যোগাযোগ : –

সম্পাদকীয় কার্যালয় : সুইট :৩০০৯, লেভেল : ০৩, হাজি
আসরাফ শপিং কমপ্লেক্স, হেমায়েতপুর, সাভার, ঢাকা
09602111463,09602333111,01611354077
fb.com/bartakantho | info@bartakantho.com

Design & Devaloped BY The Creation IT BD Limited | সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © বার্তাকণ্ঠে প্রকাশিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র ও অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি।

দুপুর ১২:০৭, ,

পদ্মায় লঞ্চঘাট ধস: আল আমিনকে পেতে পরিবারের আকুতি

নিজস্ব প্রতিবেদক | বার্তাকন্ঠ ডটকম

আল আমিনকে পেতে পরিবারের আকুতি
শরীয়তপুর: জেলার নড়িয়া উপজেলার সাধুর বাজার লঞ্চঘাট ধসে নিখোঁজ ১০ জনের সন্ধান এখনও পাওয়া যায়নি।

গত মঙ্গলবার (৭ আগষ্ট) দুপুরে সাধুর বাজার লঞ্চঘাট ধসে পদ্মা নদীতে পড়লে ১০ জন নিখোঁজ হন বলে উপজেলা প্রশাসন ও পুলিশ নিশ্চিত করেছে।

দুর্ঘটনার পর তাৎক্ষণিকভাবে নয়জন নিখোঁজের কথা বলেছিল স্থানীয়রা; কিন্তু উপজেলা প্রশাসন ও ফায়ার সার্ভিস পাঁচজন নিখোঁজের কথা স্বীকার করেছিল।

নিখোঁজরা হলেন- পাচুখারকান্দির মোশারফ চোকদার, বাড়ৈপাড়ার জামাল ছৈয়াল, কেদারপুরের মজিবর (মজু) ছৈয়াল, শাহজাহান বেপারী, মোক্তারচরের রশিদ হাওলাদার, চাকধ গ্রামের নাছির হাওলাদার, নাছির করাতি, পিরোজপুরের একটি মোবাইল ফোন কোম্পানির এরিয়া সেলস এক্সিকিউটিভ শেখ আলামিন হাসান, অন্ত মকদম ও উত্তর কেদারপুর গ্রামের গুপি দাস।

একইসঙ্গে সাতটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, দুইটি ট্রলি, একটি মাহেন্দ্র জিপ ও একটি পন্টুন পানিতে তলিয়ে গেছে।

ফায়ার সার্ভিসের উপ-সহকারী পরিচালক নিয়াজ আহমেদ বলেন, লঞ্চঘাট এলাকা নদীতে বিলীন হওয়ার খবর পেয়ে আমরা উদ্ধার অভিযানে ডুবুরিদল নদীতে নামানোর পর প্রবল স্রোতের কারণে উদ্ধারর কাজে ব্যর্থ হয়ে ফিরে আসি। নৌকা-ট্রলার যোগে সন্ধান কাজ চলছে। আমাদের কাছে তালিকা অনুযায়ী এখনও ১০জন নিখোঁজ রয়েছে।

নিখোঁজদের সন্ধানে স্বজনরা পদ্মাপাড়ে অপেক্ষা করছে।

কেদারপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ঈমাম হোসেন দেওয়ান জানান, মঙ্গলবার বিকাল থেকেই নিখোঁজদের স্বজনসহ হাজার হাজার উৎসুক জনতা সাধুরবাজার এলাকায় ভিড় করছে। স্বজন হারানোর আশংকায় তারা আহাজারি করছে।

নিখোঁজ শাহজাহান বেপারীর মেয়ে শাহনাজ বেগম বলেন, আমার বাবা একজন রিকশা চালক। সে দোকানপাট সরানোর কাজে সহায়তা করতে এসে নিখোঁজ হয়ে যায়। তার কোনো সন্ধান পাইনি। আমার একটি বোন ও একটি ভাই প্রতিবন্ধী। আমরা কীকরে ওদের নিয়ে বাঁচব।

পিরোজপুরের রুহুল আমি বলেন, আমার ভাই শেখ আল আমিন হাসান আইটিএল মোবাইল কোম্পানির সেলস এক্সিকিউটিভ। সে এ এলাকায় মার্কেট ভিজিটে এসে ভাংগন দেখতে যায়। এ সময় হঠাৎ মাটি দেবে গেলে পানির স্রোতে হারিয়ে যায়। তার কোনো সন্ধান পাইনি।

নড়িয়া থানার ওসি আসলাম উদ্দিন বলেন, নিখোঁজের তালিকা দীর্ঘ হয়েছে। স্বজনদের দাবি অনুযায়ী এখন ১০ জন নিখোঁজ রয়েছে। প্রবল স্রোতের কারণে উদ্ধার কাজ করতে পারছে না ডুবুরিরা। নৌকা-ট্রলার যোগে সন্ধান কাজ চলছে। আইনশৃংখলার কাজে ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

এদিকে, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এ কে এম এনামুল হক শামীম প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে নিখোঁজদের প্রতি পরিবারকে ১০ হাজার টাকা করে অনুদান দিয়েছেন।

অন্যদিকে নিখোঁজ পিরোজপুরের শেখ আল আমিন হাসানকে পেতে তার পরিবারের সদস্যরা বিভ্ন্নি উপায়ে আবেদন জানিয়েছেন। কেউ যদি তার সন্ধান পেয়ে থাকে তবে নিচের এই মোবাইল নম্বরে যোগাযোগ করতে বিশেষভাবে অনুরোধ জানিয়েছেন নিখোঁজের এই পরিবারের সদস্যরা।

ফোন- ০১৮৬৯২৩০৯৪৬, ০১৯১৮৮৪৯৩২৩, ০১৭১১৯৯২০১৬, ০১৬৭৩৫৬১৯৭৪, ০১৭১৪২০৮৪১৩, ০১৭২১০৪৬৯৫৩, ০১৯৩৭১৯৯৮৯৪, ০১৯২৮৯৮৪৮৭৩, ০১৭১১০৩২৯৯২, ০১৭১৪৩৭৮৯১৭

 

 

https://youtu.be/GL3LtGpTEfk

Comments

comments

সর্বশেষ আপডেট



এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ



সদস্য মণ্ডলী : –

উপদেষ্টা : ডা রফিকুল ইসলাম বিজলী
আইন উপদেষ্টা : এ্যড জামাল হোসেন মুন্না
সম্পাদক ও প্রকাশক : মাহির শাহরিয়ার শিশির
বার্তা সম্পাদক: সৈকত মাহমুদ
নির্বাহী সম্পাদক : মনেম শাহরিয়ার শাওন

যোগাযোগ : –

সম্পাদকীয় কার্যালয় : সুইট :৩০০৯, লেভেল : ০৩, হাজি
আসরাফ শপিং কমপ্লেক্স, হেমায়েতপুর, সাভার, ঢাকা
09602111463,09602333111,01611354077
fb.com/bartakantho | info@bartakantho.com

Design & Devaloped BY The Creation IT BD Limited | সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © বার্তাকণ্ঠে প্রকাশিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র ও অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি।